সর্বশেষ
শনিবার ৩রা অগ্রহায়ণ ১৪২৫ | ১৭ নভেম্বর ২০১৮

এদেশের মানুষ সন্ত্রাসীদের আশ্রয় দেবে না: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

শনিবার, অক্টোবর ১৫, ২০১৬

1481428529_1476540905.jpg
বিডিলাইভ রিপোর্ট :
আমাদের লক্ষ্য ছিল সমস্ত বাঙ্গালীর বাংলাদেশ থাকবে। এখানে হিন্দু, মুসলিম, বৌদ্ধ, খৃষ্টান সবার ধর্ম সবাই স্বাধীনভাবে পালন করবেন। প্রধানমন্ত্রীও বিশ্বাস করেন বাংলাদেশ সবার। উৎসবের ভাগিদার আমরা সবাই। বাংলাদেশ বুদ্ধিষ্ট ফেডারেশন আয়োজিত শুভ প্রবারণা পূর্নিমা ও ফানুস উৎসবে আজ শনিবার সন্ধ্যায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল এসব কথা বলেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, বৌদ্ধ পূর্ণিমা বৌদ্ধদের প্রাণের উৎসব। আমি বাংলাদেশের একপ্রান্ত থেকে অন্য প্রান্তে ঘুরেছি। আমরা যেখানে অসংগতি দেখছি সেখানেই ব্যবস্থা নিচ্ছি। আমরা দেখেছি নানান ধরণের হত্যা করে একটি অকার্যকর দেশ সৃষ্টি করার লক্ষ্যে কিছু মানুষ কাজ করছে। প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে আমরা একটি সুন্দর বাংলাদেশ গড়ার চেষ্টা করছি। এখানে সংখ্যালঘু তারা যারা মানুষ হত্যা করছে। যারা বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করছে তারাই সংখ্যালঘু। বাংলাদেশে বৌদ্ধধর্ম আজকের নয়, হাজার বছরের।

তিনি আরো বলেন, এদেশের সবাই শান্তিপ্রিয় মানুষ। এদের মানুষ অন্যদেশের মত সন্ত্রাসীদের আশ্রয়কে প্রশয় দেবে না। আমাদের খৃষ্টান, হিন্দু ও শিয়া ধর্মগুরুদের মত জ্ঞানী মানুষদের সঙ্গে আমার পরিচয় হয়েছে।

মন্ত্রী বলেন, আমরা একটি অসাম্প্রদায়িক দেশ চাই। যেখানে সকল ধর্মের মানুষ একসঙ্গে বসবাস করবেন এই প্রত্যাশা ব্যক্ত করছি।

শুভ প্রবারণা পূর্নিমা ও ফানুস উৎসবের সভাপতিত্ব করেন শ্রীমৎ ধর্মমিত্র মহাথের। এছাড়াও আরো উপস্থিত ছিলেন আন্তর্জাতিক বৌদ্ধ বিহারের নেতৃত্ববৃন্দ।

ঢাকা, শনিবার, অক্টোবর ১৫, ২০১৬ (বিডিলাইভ২৪) // ই নি এই লেখাটি ১৬৯০ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন