সর্বশেষ
শুক্রবার ২৯শে অগ্রহায়ণ ১৪২৬ | ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯

ম্যাচ পাতানোর দায়ে ৭ বছর নিষিদ্ধ লিনডাল

বুধবার, জানুয়ারী ১১, ২০১৭

830054576_1484137365.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :
ম্যাচ পাতানোর দায়ে অস্ট্রেলিয়ার টেনিস খেলোয়াড় নিক লিনডাল সাত বছরের জন্য নিষিদ্ধ করেছে দেশটির সর্বোচ্চ টেনিস সংস্থা। সেই সাথে তাকে ৩৫ হাজার মার্কিন ডলার জরিমানা করা হয়েছে।

বছরের প্রথম গ্র্যান্ড স্ল্যাম অস্ট্রেলিয়ান ওপেনকে সামনে রেখে তাকে এই শাস্তি দেওয়া হয়েছে।

২০১৩ সালে অস্ট্রেলিয়ার ফিউচার টুর্নামেন্টে ম্যাচ পাতানোর যে অভিযোগ করা হয় তাতে অস্বীকৃতি জানিয়েছির লিন্ডাল। কিন্তু টিআউইউর তদন্তে অভিযোগের সত্যতা ধরা পড়ে। যদিও ঐ বছরই ২৮ বছর বয়সী লিন্ডাল টেনিস থেকে অবসরের ঘোষণা দেন। তারপরেও পেশাদার টেনিস থেকে সাত বছরের জন্য নিষিদ্ধ করা হয়েছে বিশ্বের ১৮৭তম র‌্যাঙ্কধারী এই খেলোয়াড়কে। গত বছর অস্ট্রেলিয়ান আদালত লিন্ডালকে দোষী সাব্যস্ত করে।  

টেনিস ইনটিগ্রিটি ইউনিটের (টিআউইউ) তদন্তের সাথে সহযোগিতা না করা ও একটি ইভেন্টে বিতর্কিত বিষয়ে জড়িয়ে পড়ার দায়ে লিন্ডালকে অভিযুক্ত করা হয়।

ঐ একই টুর্নামেন্টে দুর্নীতির দায়ে আরো দুই খেলোয়াড় ব্রেন্ড ওয়াকিন ও ইসাক ফ্রস্টকেও শাস্তি দেয়া হয়েছে। ১০৬৬ র‌্যাঙ্কধারী ওয়াকিনকে ছয় মাসের জন্য নিষিদ্ধ ও ১৫১৫ র‌্যাঙ্কধারী ফ্রস্টকে ইতিমধ্যেই এক মাসের জন্য নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

ঢাকা, বুধবার, জানুয়ারী ১১, ২০১৭ (বিডিলাইভ২৪) // এস এইচ এই লেখাটি ১২৭৬ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন