সর্বশেষ
সোমবার ৫ই অগ্রহায়ণ ১৪২৫ | ১৯ নভেম্বর ২০১৮

আবুল হোসেনের মন্ত্রিত্ব ফিরিয়ে দেওয়ার দাবী বি. চৌধুরীর

মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারী ১৪, ২০১৭

1317977687_1487078491.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :
বিকল্পধারা বাংলাদেশের সভাপতি সাবেক রাষ্ট্রপতি অধ্যাপক এ কিউ এম বদরুদ্দোজা চৌধুরী বলেছেন, সাবেক মন্ত্রী সৈয়দ আবুল হোসেনকে পুনরায় মন্ত্রিত্ব দিয়ে তাঁর মর্যাদা পুনঃপ্রতিষ্ঠা করা উচিত।

কানাডার একটি আদালত পদ্মা সেতু নিয়ে বিশ্বব্যাংকের দুর্নীতির অভিযোগ খারিজ করে দেওয়ার পর বদরুদ্দোজা চৌধুরী আজ মঙ্গলবার গণমাধ্যমে দেওয়া এক বিবৃতিতে এসব কথা বলেন।

বদরুদ্দোজা চৌধুরী বলেন, ‘যেহেতু ভুল তথ্যের কারণে সৈয়দ আবুল হোসেন মন্ত্রিত্ব থেকে বঞ্চিত হয়েছিলেন, সেহেতু পুনরায় মন্ত্রিত্ব দিয়ে তাঁর মর্যাদা পুনঃপ্রতিষ্ঠা করা উচিত বলে আমি মনে করি।’

বিবৃতিতে তিনি বলেন, দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) যেভাবে সৈয়দ আবুল হোসেন এবং সাবেক পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আবুল হাসান চৌধুরীকে একটি ভুল তথ্যের কারণে হেনস্তা করেছে; এ জন্য দুদকের পক্ষ থেকে ভুল স্বীকার করে বক্তব্য দেওয়া উচিত বলেও মনে করেন তিনি।

বিশ্বব্যাংক পদ্মা সেতু প্রকল্পে দুর্নীতির অভিযোগ তুললে ২০১৩ সালের জানুয়ারিতে তখনকার যোগাযোগমন্ত্রী সৈয়দ আবুল হোসেন পদত্যাগ করেন। বিশ্বব্যাংক দুর্নীতির ষড়যন্ত্র হয়েছে অভিযোগ তুলে পদ্মা সেতু প্রকল্পে অর্থায়ন বন্ধ করে দেয়। তবে প্রথম থেকেই বাংলাদেশ সরকার দুর্নীতির ষড়যন্ত্রের অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে আসছিল। বিশ্বব্যাংকের সরে দাঁড়ানোর চূড়ান্ত ঘোষণার এক দিন আগেই নিজস্ব অর্থায়নে এই পদ্মা সেতু নির্মাণের ঘোষণা দেয় বাংলাদেশ সরকার। নিজস্ব অর্থায়নেই পদ্মা সেতু হচ্ছে। ২৮ হাজার ৭৯৩ কোটি টাকার এ প্রকল্পের কাজ এখন পর্যন্ত ৪০ শতাংশ শেষ হয়েছে।

তবে এই প্রকল্পে দুর্নীতির ষড়যন্ত্রের অভিযোগ খারিজ করে শুক্রবার কানাডার আদালত বলেছেন, এই মামলায় কোনো প্রমাণ হাজির করা হয়নি। প্রমাণ হিসেবে যেগুলো উপস্থাপন করা হয়েছে, সেগুলো অনুমাননির্ভর, গালগল্প ও জল্পনা।

ঢাকা, মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারী ১৪, ২০১৭ (বিডিলাইভ২৪) // ই নি এই লেখাটি ৯৪৩৭ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন