সর্বশেষ
শুক্রবার ৬ই আশ্বিন ১৪২৫ | ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮

ইলেট্রনিক বর্জ্য দিয়েই টোকিও অলিম্পিকের মেডেল

বুধবার, ফেব্রুয়ারী ১৫, ২০১৭

497278220_1487160526.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :
২০২০ সালে টোকিও অলিম্পিকে বিজয়ীদের জন্য সমস্ত মেডেল তৈরি হবে রিসাইকেলড ধাতু দিয়ে। আর এ কারণে এই অলিম্পিক হবে 'স্পেশাল'।

বাতিল হওয়া স্মার্টফোন, ল্যাপটপ, ডেস্কটপ, ফ্রিজ, টিভি, এসির মতো ইলেকট্রনিক সামগ্রী দিয়ে তৈরি করা হবে অলিম্পিক মেডেল।

আর এসব ইলেট্রনিক বর্জ্য সংগ্রহের জন্য জাপানবাসীর কাছে আবেদন রেখেছে টোকিও অলিম্পিক আয়োজক সংগঠন। পুরনো স্মার্টফোন এবং ইলেকট্রনিক গেজেট ডোনেট করতে আবেদন করা হয়েছে।

আধুনিক পৃথিবীর একটা বড় সমস্যা ইলেট্রনিক বর্জ্য। প্রতিদিন যত স্মার্টফোন, ল্যাপটপ, ডেস্কটপ, ফ্রিজ, টিভি, এসির মতো ইলেকট্রনিক সামগ্রী বাতিল হয়, তা যেভাবে পৃথিবীর বুকে একটা বিশাল জায়গা ভরিয়ে তুলছে- তা নিয়ে চিন্তিত পরিবেশবিদরা।

ইলেকট্রনিক বর্জ্য থেকে গ্রিন হাউস গ্যাসও নিঃসরণ হয়। ফলে পরিবেশ দূষণও বাড়ে। অলিম্পিক আয়োজনের খরচ না বাড়িয়েই কিছুটা হলেও এই বর্জ্য থেকে মুক্তি পাওয়ার পথ বের করল জাপান।

জাপান-জুড়ে মোট ২০০০টি স্টোর খোলা হবে। যেখানে নিজেদের পুরনো স্মার্টফোন, ডিজিটাল ক্যামেরা, ল্যাপটপ, টিভির মতো বাতিল ইলেকট্রনিক দ্রব্য দান করতে পারবেন সে দেশের সাধারণ মানুষ।

Image result for tokyo olympics medal by recycled metal

২০১৭-র এপ্রিল থেকে হবে এই প্রক্রিয়া। আশা করা হচ্ছে, যত বাতিল ইলেট্রনিক দ্রব্য জমা পড়বে তা থেকে মোট আট টন ধাতু সংগ্রহ করা যাবে। এই ধাতু দিয়ে ৫০০০টি মেডেল তৈরি করা যাবে। যা সামার ও স্পেশাল অলিম্পিকের সম্পূর্ণ মেডেল চাহিদা পূরণ করবে।

এর আগে রিও অলিম্পিকেও বাতিল ধাতু দিয়ে ৩০% মেডেল তৈরি হয়েছিলো। কিন্তু এই প্রথম কোনও অলিম্পিকের সমস্ত মেডেলই রিসাইকেলড ধাতু দিয়ে তৈরি হবে।

ঢাকা, বুধবার, ফেব্রুয়ারী ১৫, ২০১৭ (বিডিলাইভ২৪) // কে এইচ এই লেখাটি ৪০০৫ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন