সর্বশেষ
বৃহঃস্পতিবার ৮ই অগ্রহায়ণ ১৪২৫ | ২২ নভেম্বর ২০১৮

এসিডদগ্ধ নারীদের নিয়ে লন্ডনে ফ্যাশন শো

শুক্রবার, অক্টোবর ১৩, ২০১৭

379399218_1507873573.png
বিডিলাইভ ডেস্ক :
এসিড হামলার ভয়াবহতা বিষয়ে সচেতনতা সৃষ্টির জন্য এসিডদগ্ধ বাংলাদেশি নারীদের নিয়ে লন্ডনে আয়োজন করা হয় ফ্যাশন শো। এই শো'তে অংশগ্রহণকারী বাংলাদেশি নারীরা লন্ডনের মানুষকে সচেতন করতে তুলে ধরেন নিজেদের জীবনের গল্প।

গত বুধবার ছিল বিশ্ব কন্যাশিশু দিবস। দিবসটি সামনে রেখে যুক্তরাজ্যভিত্তিক দাতব্য সংস্থা অ্যাকশনএইড ইউকে এই ব্যতিক্রমী ফ্যাশন শোর আয়োজন করে। পূর্ব লন্ডনের ব্রিকলেইনের দ্য ওল্ড ট্রুম্যান ব্রিউরি মিলনায়তনে স্থানীয় সময় সন্ধ্যা ৭টা থেকে ঘণ্টাব্যাপী এই শো অনুষ্ঠিত হয়।

বাংলাদেশের বিখ্যাত ফ্যাশন ডিজাইনার বিবি রাসেল এই শো তত্ত্বাবধান করেন। মেকআপ আর্টিস্ট ছিলেন ফারজানা শাকিল। আর পুরো আয়োজন সমন্বয় করেন অ্যাকশনএইড বাংলাদেশের কর্মকর্তারা।

এই আয়োজনে অনেকের সঙ্গে অংশ নিয়েছিলেন বাংলাদেশি এসিডদগ্ধ নারী নুরুন্নাহার বেগম। শো'তে উপস্থিত সকলকে তিনি তার জীবনের গল্প শোনান। তিনি বলেন, যখন আমার বয়স ১৫ বছর তখন এসিড হামলার শিকার হই। ভেবেছিলাম আমার জীবনটা থেমে যাবে, আমি আর পড়াশোনা করতে পারবো না। কিন্তু আমি এখন অনেক আত্মবিশ্বাসী। আমি মনে করি, আমি যা চাই তা করতে পারবো। হয়তো আমার মুখ পরিবর্তন করতে পারবো না, কিন্তু জীবন পরিবর্তন করতে পারবো।

লন্ডনে বেড়ে চলেছে ভয়াবহ এসিড হামলার ঘটনা। চলতি বছরের গত ৬ মাসে সেখানে প্রায় ৪শটি এসিড হামরার ঘটনা ঘটে। বাংলাদেশেও এসিড হামলার নিষ্ঠুরতার শিকার হতে হয়েছে অনেক নারীকে। এ বিষয়ে মানুষকে সচেতন করতেই এই ফ্যাশন শো'র আয়োজন।

প্রসঙ্গত বাংলাদেশ সরকারের এসিড হামলার বিরুদ্ধে পদক্ষেপ বেশ কঠোর। সরকার দেশে এসিড বিক্রির ওপর নিয়ন্ত্রণ আরোপ করেছে। সরকারের উদ্যোগের কারণেই গত ১০০ বছরের মধ্যে দেশে এখন এসিড হামলার ঘটনা অনেক কম।

ঢাকা, শুক্রবার, অক্টোবর ১৩, ২০১৭ (বিডিলাইভ২৪) // এস আর এই লেখাটি ২০৭ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন