সর্বশেষ
মঙ্গলবার ৩রা আশ্বিন ১৪২৫ | ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮

বাংলামোটরে কলেজছাত্রী লাঞ্ছিত ঘটনায় বাবার মামলা

শুক্রবার, মার্চ ৯, ২০১৮

13.jpg
বিডিলাইভ রিপোর্ট :

সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে গত ৭ মার্চের জনসভাকে ঘিরে রাজধানীর সড়কগুলোয় ব্যাপক জনসমাগমের মধ্যে যৌন নিপীড়নের ঘটনায় তার বাবা রমনা থানায় মামলা করেছেন।

গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে রমনা থানায় তিনি মামলাটি করেন।

রমনা থানার ওসি বলেন, নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে করা ওই মামলায় অজ্ঞাতপরিচয় ১৫-২০ জনকে আসামি করা হয়েছে। রমনা মডেল থানার মামলা নম্বর-২৪।

মামলার অভিযোগ অনাদি রঞ্জন বৈরাগী বলেছেন, 'ঘটনার দিন ৭ মার্চ রাত ৯টায় কর্মস্থল থেকে বাসায় ফিরে জানতে পারেন তার মেয়ে (ভিকটিম) শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বেইলি রোড ক্যাম্পাস থেকে বচাড়ি ফেরার সময় শান্তিনগর মোড়ে বাস না পেয়ে কাকরাইল মোড়ে হেঁটে যায়।'

'সেখানেও সে বাস না পেয়ে অফিসার্স ক্লাবের আগের সিগন্যালে এসে ফার্মগেটগামী একটি বাসে ওঠে। বাসটি মগবাজার হয়ে বাংলামোটরের দিকে যাওয়ার সময় তীব্র যানজটে পড়ে। তখন সে বাস থেকে নেমে হেঁটে বাংলামোটরের দিকে যেতে লাগলে আনুমানিক ৩টার দিকে ১৫-২০ জন যুবক তাকে যৌন নিপীড়ন শুরু করলে এক পুলিশ সদস্য তাকে উদ্ধার করে একটি বাসে তুলে দেয়।

রমনা থানার ওসি বলেন, 'সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের স্ট্যাটাসে যেভাবে বর্ণনা করা হয়েছে, মামলায় প্রায় সেভাবেই লেখা হয়েছে। তবে কোন পুলিশ সদস্য ওই তরুণীকে উদ্ধার করে বাসে উঠিয়ে দিয়েছেন- তা এখনো জানা যায়নি। সেটাও খুব শিগগিরই বের করা হবে।'

পুলিশ ইতোমধ্যে ওই শিক্ষার্থীর সঙ্গে কথা বলে তার বক্তব্য রেকর্ড করেছে বলে জানান ওসি।

প্রসঙ্গত, গত ৭ মার্চ শহীদ সোহরোওয়ার্দী উদ্যানের সমাবেশে আসা মিছিল থেকে বিভিন্ন সময়ে স্থানে নারীদের উত্ত্যক্ত করার অভিযোগ ওঠে। পরে গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে সিরডাপ মিলনায়তনে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ভিডিও ফুটেজ দেখে দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দেন।


ঢাকা, শুক্রবার, মার্চ ৯, ২০১৮ (বিডিলাইভ২৪) // এস আর এই লেখাটি ৮৪৫ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন