সর্বশেষ
মঙ্গলবার ১১ই আষাঢ় ১৪২৬ | ২৫ জুন ২০১৯

ঢাবির নতুন ‍উপ-উপাচার্য কবি মুহাম্মদ সামাদ

রবিবার, মে ২৭, ২০১৮

7.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন সহ-উপাচার্য (প্রশাসন) হলেন সমাজকল্যাণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের অধ্যাপক মুহাম্মদ সামাদ। বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য ও রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ তাকে নিয়োগ দেন।

আজ রোববার শিক্ষা মন্ত্রণালয় এই তথ্য জানিয়েছে। জানা গেছে, এ বিষয়ে মন্ত্রণালয় থেকে প্রজ্ঞাপন জারি করা হবে। খবর বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম'র।

মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের উপ-সচিব (সরকারি সাধারণ বিশ্ববিদ্যালয়-১) হাবিবুর রহমান বলেন, রাষ্ট্রপতি ও আচার্য মো. আবদুল হামিদ অধ্যাপক মুহাম্মদ আবদুস সামাদকে চার বছরের জন্য ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য হিসাবে নিয়োগ দিয়েছেন।

সাহিত্যাঙ্গনে কবি ‘ম সামাদ’ নামে পরিচিত এই অধ্যাপক বর্তমানে জাতীয় কবিতা পরিষদের সভাপতি। উপ-উপাচার্য পদে তিনি উপাচার্য অধ্যাপক আখতারুজ্জামানের স্থলাভিষিক্ত হচ্ছেন।

উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) হিসাবে দায়িত্ব পালন করে আসা অধ্যাপক আখতারুজ্জামানকে গত ৪ সেপ্টেম্বর উপাচার্যের দায়িত্ব দেয় সরকার। এই অধ্যাপক বর্তমানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনেট সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি বিশ্ববিদ্যালয়ে আওয়ামীপন্থী শিক্ষকদের সংগঠন নীল দলের আহ্বায়কের দায়িত্বও পালন করছেন।

১৯৫৬ সালে ময়মনসিংহ জেলার জামালপুর মহকুমায় জন্ম নেওয়া মুহাম্মদ সামাদ এর আগে বেসরকারি ইউনিভার্সিটি অব ইনফরমেশন টেকনোলজি অ্যান্ড সায়েন্সেসের (ইউআইটিএস) উপাচার্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। এক সময় সমাজকর্ম ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের পরিচালকের দায়িত্ব পালন করা অধ্যাপক সামাদ এখন বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনেট সদস্য।

তিনি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের উইনোনা স্টেট ইউনিভার্সিটিতে ভিজিটিং অধ্যাপক ছিলেন। ২০০৯ সালে সমাজকর্ম শিক্ষার সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ সংস্থা ওয়াশিংটনস্থ সিএসডব্লিউই পরিচালিত ‘ক্যাথেরিন ক্যান্ডাল ইনস্টিটিউট অব ইন্টারন্যাশনাল সোশ্যাল ওয়ার্ক এডুকেশন’ এর ফেলো হিসেবে বাংলাদেশ ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বিশ্ববিদ্যালয়ে সমাজকর্মের উচ্চশিক্ষার উপর তুলনামূলক গবেষণা করেন।

কবি সামাদের প্রকাশিত কাব্যগ্রন্থের মধ্যে আমার দু’চোখ জলে ভরে যায়, আজ শরতের আকাশে পূর্ণিমা, চলো, তুমুল বৃষ্টিতে ভিজি, পোড়াবে চন্দন কাঠ, আমি নই ইন্দ্রজিৎ মেঘের আড়ালে, একজন রাজনৈতিক নেতার মেনিফেস্টো, প্রেমের কবিতা, কবিতাসংগ্রহ প্রভৃতি রয়েছে।

কাব্যক্ষেত্রে কৃতিত্বপূর্ণ অবদানের জন্য তিনি সৈয়দ মুজতবা আলী সাহিত্য পুরস্কার, কবি সুকান্ত সাহিত্য পুরস্কার, কবি জীবনানন্দ দাশ পুরস্কার, কবি জসীমউদ্দীন সাহিত্য পুরস্কার, ত্রিভূজ সাহিত্য পুরস্কার, কবি বিষ্ণু দে পুরস্কার পেয়েছেন।


ঢাকা, রবিবার, মে ২৭, ২০১৮ (বিডিলাইভ২৪) // জে এইচ এই লেখাটি ৮১২ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন