সর্বশেষ
বুধবার ২৯শে কার্তিক ১৪২৬ | ১৩ নভেম্বর ২০১৯

শিশু তুহিন হত্যা, বাবার পক্ষে নেই কোনো আইনজীবী

বৃহস্পতিবার, অক্টোবর ১৭, ২০১৯

72886955_2975614142509009_592724801315930112_n.jpg
বিডিলাইভ রিপোর্ট :

সুনামগঞ্জে ছোট্ট শিশু তুহিনকে নির্মমভাবে তার বাবা-চাচার হত্যার ঘটনায় তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে। সমালোচনার ঝড় উঠেছে চারিদিকে। এমন অবস্থায় আসামিদের পক্ষে দাঁড়াতে রাজি হননি কোনো আইনজীবী।

আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে তুহিনকে হত্যার কথা স্বীকার করেছে তারা।

সুনামগঞ্জের আইনজীবী স্বপন কুমার দাস বলেন, শিশু তুহিন হত্যাকাণ্ড খুবই মর্মান্তিক এবং ভয়ঙ্কর। বাবার কোলে সন্তানকে জবাই করে হত্যার এমন নৃশংস ঘটনা কোথাও ঘটেছে বলে আমার জানা নেই। তাই আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি এই হত্যাকাণ্ডে যারা জড়িত তাদের পক্ষে আদালতে কোনো আইনজীবী দাঁড়াবে না।

জেলা আইজীবী সমিতির সভাপতি মো. চাঁন মিয়া বলেন, ঘুমন্ত শিশু তুহিনকে কোলে করে নিয়ে যায় তার বাবা, খুন করে চাচা। এমন ঘটনা বাংলাদেশের প্রথম নৃশংস হত্যাকাণ্ড। এই ঘটনায় জড়িতদের সর্বোচ্চ শাস্তি চাই আমরা। এমন ঘটনা যেন আর না ঘটে সেজন্য আমাদের সমাজকে পরিবর্তন করতে হবে।

সুনামগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান বলেন, শিশু তুহিন হত্যায় যারা জড়িত আমরা তাদের আইনের আওতায় এনেছি। আমরা চেষ্টা করব দোষীদের সর্বোচ্চ শাস্তির ব্যবস্থা করার। এমন ঘটনা যেন আর না ঘটে সেজন্য আমাদের যা যা করা প্রয়োজন তাই করব।

গত রবিবার রাতে সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলায় শিশু তুহিনকে হত্যা করে গাছের সঙ্গে মরদেহ ঝুলিয়ে রাখা হয়। সোমবার ভোরে গাছের সঙ্গে ঝুলানো অবস্থায় শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। এ সময় তুহিনের পেটে দুটি ধারালো ছুরি বিদ্ধ ছিল। তার পুরো শরীর রক্তাক্ত, কান ও লিঙ্গ কর্তন অবস্থায় ছিল। তুহিন ওই গ্রামের আব্দুল বাছিরের ছেলে।

 


ঢাকা, বৃহস্পতিবার, অক্টোবর ১৭, ২০১৯ (বিডিলাইভ২৪) // কে এইচ এই লেখাটি ৪৪৯ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন