সর্বশেষ
সোমবার ৭ই মাঘ ১৪২৬ | ২০ জানুয়ারি ২০২০

ব্রিটেনের নির্বাচনে হ্যাট্রিক জয় টিউলিপ-রূপার

শুক্রবার, ডিসেম্বর ১৩, ২০১৯

78656287_445972789421272_4025730635325767680_n.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :

ব্রিটেনের নির্বাচনে এখন পর্যন্ত এগিয়ে রয়েছে ক্ষমতাসীন কনজারভেটিভ। তবে বিরোধী দল লেবার পার্টির হয়ে বাজিমাত করেছেন বঙ্গবন্ধু নাতনি টিউলিপ রেজওয়ানা সিদ্দিক এবং  বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত রূপা হক। এ নিয়ে তৃতীয়বারের মতো ব্রিটিশ পার্লামেন্টের সাংসদ নির্বাচিত হয়েছেন তারা।

২০১৫ সালে প্রথমবারের মতো সাংসদ নির্বাচিত হন তারা। এরপর ২০১৭ সালে এবং সর্বশেষ গতকাল অনুষ্ঠিত হওয়া নির্বাচনেও জয় পেয়েছেন টিউলিপ-রূপা।

লন্ডনের ইলিং সেন্ট্রাল অ্যান্ড অ্যাকটন আসনে তৃতীয় মেয়াদে ব্রিটিশ পার্লামেন্ট সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত রূপা হক। এছাড়া উত্তর-পশ্চিম লন্ডনের হ্যামস্টেড অ্যান্ড কিলবার্ন আসন জয়লাভ করেছেন টিউলিপ।

হ্যাম্পস্টেড অ্যান্ড কিলবার্ন আসনে ১৯৯২ সাল থেকে লেবার পার্টির এমপি ছিলেন অস্কার জয়ী অভিনেত্রী গ্রেন্ডা জ্যাকসন। গ্রেন্ডা জ্যাকসন অবসর নেওয়ার ঘোষণা দিলে লেবার পার্টির স্থানীয় সদস্যদের ভোটে হ্যাম্পস্টেড অ্যান্ড কিলবার্ন আসনে এমপি পদে মনোনয়ন পান টিউলিপ। এই নিয়ে তৃতীয়বার এমপি পদে নির্বাচন করলেন তিনি। তিনবারই হেসেছেন বিজয়ের হাসি।

লন্ডনের মিচামে জন্ম নেওয়া টিউলিপ কিংস কলেজ থেকে স্নাতকোত্তর ডিগ্রী অর্জন করেন। ১৫ বছর বয়স থেকে হ্যাম্পস্টেড অ্যান্ড কিলবার্নে বসবাস করছেন তিনি। পড়েছেন একই এলাকার স্কুলে। ২০১০ সালে স্থানীয় ক্যামডেন কাউন্সিলে প্রথম বাঙালি নারী কাউন্সিলর নির্বাচিত হন তিনি।

লন্ডনের অন্যতম আলোচিত ইলিং সেন্ট্রাল অ্যান্ড একট্রন আসনে লেবার পার্টির প্রার্থি রূপা হক বিজয়ী হয়েছেন। ইলিং সেন্ট্রাল অ্যান্ড অ্যাকটন আসনটি গতবারের মতো এবারও লেবার পার্টির অন্যতম ‘টার্গেট সিট’ ছিল। কিংস্টন ইউনিভার্সিটির সমাজবিজ্ঞান বিভাগের জ্যৈষ্ঠ প্রভাষক রূপা হক। ১৯৭২ সালে লন্ডনের ইলিংয়ে জন্ম নেওয়া রূপার আদি বাড়ি পাবনায়।

 


ঢাকা, শুক্রবার, ডিসেম্বর ১৩, ২০১৯ (বিডিলাইভ২৪) // কে এইচ এই লেখাটি ২৮৮ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন