সর্বশেষ
মঙ্গলবার ২৩শে আষাঢ় ১৪২৭ | ০৭ জুলাই ২০২০

বার্সাকে কাঁদিয়ে ফাইনালে অ্যাথলেটিকো

শুক্রবার, জানুয়ারী ১০, ২০২০

atletico-090120-05.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :

বার্সেলোনাকে হারিয়ে স্প্যানিশ সুপার কাপের ফাইনালে উঠল অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদ। বৃহস্পতিবার রাতে দ্বিতীয় সেমি-ফাইনালে বার্সাকে ৩-২ গোলে হারায় অ্যাথলেটিকো। অ্যাথলেটিকোর গোল তিনটি করেন কোকে, মোরাতা ও আনহেল কোররেয়া। এই জয়ে ফাইনালে রিয়াল মাদ্রিদের প্রতিপক্ষ সিমিওনের দল।

আক্রমণ পাল্টা আক্রমণ চললেও প্রথমার্ধে গোলের দেখা পায়নি কোনো দল। দ্বিতীয়ার্ধের প্রথম মিনিটেই এগিয়ে যায় অ্যাথলেটিকো। আনহেল কোররেয়ার ডি-বক্সে বাড়ানো বল ধরে দ্বিতীয় ছোঁয়ায় নিচু শটে গোলটি করেন স্প্যানিশ মিডফিল্ডার কোকে।তাদের এগিয়ে যাওয়ার আনন্দ অবশ্য বেশিক্ষণ স্থায়ী হয়নি। পাঁচ মিনিট পর মেসির নৈপুণ্যে সমতায় ফেরে বার্সেলোনা। সুয়ারেজের ছোট পাস ধরে দুজনের মধ্যে দিয়ে ডি-বক্সে ঢুকে ডান পায়ের শটে কাছের পোস্ট দিয়ে ঠিকানা খুঁজে নেন আর্জেন্টাইন তারকা।

৫৯তম মিনিটে আবারও জালে বল পাঠিয়েছিলেন মেসি। কিন্তু নিয়ন্ত্রণে নেওয়ার ফাঁকে বল তার হাতে লাগায় ভিএআরের সাহায্যে হ্যান্ডবলের বাঁশি বাজান রেফারি।তিন মিনিট পর অবশ্য ঠিকই এগিয়ে যায় বার্সেলোনা। আলবার ক্রসে সুয়ারেজের হেড ঝাঁপিয়ে ঠেকান গোলরক্ষক, কিন্তু বিপদমুক্ত করতে পারেননি। ফিরতি বল লাফিয়ে হেডে ফাঁকা জালে পাঠান গ্রিজম্যান।

৬৬তম মিনিটে ব্যবধান বাড়তে পারতো। কিন্তু সুয়ারেজের জোরালো শট ঝাঁপিয়ে রুখে দেন ওবলাক। ৭৫তম মিনিটে জালে বল পাঠান পিকে; তবে এবার ভিএআরের সাহায্যে অফসাইডের বাঁশি বাজান রেফারি।

৮১তম মিনিটে মোরাতার সফল স্পট কিকে সমতায় ফেরে অ্যাথলেটিকো। পাল্টা আক্রমণে একা ডি-বক্সে ঢুকে পড়া ভিতোলোকে ঠেকাতে গিয়ে গোলরক্ষক নেতো ফাউল করে বসলে পেনাল্টিটি পায় সিমেওনের দল।

আর ৮৬তম মিনিটে পার্থক্য গড়ে দেন কোররেয়া। মাঝমাঠের কাছ থেকে বল ধরে দ্রুত এগিয়ে ডি-বক্সে ঢুকে জোরালো শটে গোলটি করেন আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড। নেতো বলে হাত লাগালেও রুখতে পারেননি। এই নিয়ে নতুন বছরে দুই ম্যাচ খেলে জয়শূন্য রইলো কাতালান ক্লাবটি। আগামী ১৩ জানুয়ারী এই সুপার কাপের ফাইনালে রিয়াল মাদ্রিদের মুখোমুখি হবে অ্যাথলেটিকো।


ঢাকা, শুক্রবার, জানুয়ারী ১০, ২০২০ (বিডিলাইভ২৪) // এ এম এই লেখাটি ৩০১ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন