সর্বশেষ
বুধবার ৪ঠা আশ্বিন ১৪২৫ | ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮

ক্রিকেটারদের বার্ষিক আয় ৬০ লাখ: ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী

সোমবার, মার্চ ২, ২০১৫

1461269775_1425308940.jpg
বিডিলাইভ রিপোর্ট :
সংসদে এক প্রশ্নের জবাবে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বীরেন শিকদার জানিয়েছেন, ক্রিকেটারদের বছরে আয় ৫০ থেকে ৬০ লাখ টাকা। জাতীয় ক্রিকেট দলের একজন খেলোয়াড়ের মাসিক বেতন, আন্তর্জাতিক ও ঘরোয়া ম্যাচ ফি অনুযায়ী এই টাকা বিসিবির মাধ্যমে ক্রিকেটাররা পেয়ে থাকেন বলে জানান তিনি।
 
সোমবার জাতীয় সংসদে সরকারি দলের সংসদ সদস্য নিজাম উদ্দিন হাজারীর লিখিত প্রশ্নের জবাবে তিনি এ তথ্য জানান।
 
সংসদ সদস্য মোরশেদ আলমের প্রশ্নের জবাবে ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রীর দেওয়া তথ্যানুযায়ী বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসসি) ও এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিলের (এসিসি) মাধ্যমে আয়োজিত বিভিন্ন টুর্নামেন্টে অংশগ্রহণ বাবদ প্রাপ্ত অর্থ এবং স্থানীয় মিডিয়া রাইটস ও টিম স্পন্সরসহ অন্যান্য স্পন্সর হতে অর্জিত অর্থ দিয়ে বোর্ডের সার্বিক ক্রিকেট কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়ে থাকে।
 
তিনি জানান, বর্তমানে বিসিবির ১৪ জন চুক্তিবদ্ধ খেলোয়াড় রয়েছেন। তাদের মাসিক বেতন 'এ+' গ্রেডে ২ লাখ টাকা। এই ক্যাটাগরিতে রয়েছেন ৪ জন। 'এ' গ্রেডের বেতন ১ লাখ ৭০ হাজার। এই ক্যাটাগরিতে রয়েছেন ১ জন। 'বি' গ্রেডের বেতন ১ লাখ ২০ হাজার, পান ৩ জন। 'সি' গ্রেডের বেতন ৯০ হাজার, পান ৩ জন। এছাড়া 'ডি' গ্রেডে ৩ জন পান ৬০ হাজার টাকা করে।    
 
মন্ত্রী আরো জানান, আন্তর্জাতিক ম্যাচে অংশগ্রহণ বাবদ জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের বোর্ড থেকে ম্যাচ ফি প্রদান করা হয়। এই ম্যাচ ফির হার টেস্ট ম্যাচে ২ লাখ, একদিনের ম্যাচে ১ লাখ এবং টি২০ ম্যাচে ৭৫ হাজার টাকা।

এছাড়া বোর্ডের তত্ত্বাবধানে আয়োজিত প্রথম শ্রেণির (লংগার ভার্সন) জাতীয় লীগে অংশগ্রহণ বাবদ প্রত্যেক খেলোয়াড়কে ম্যাচ প্রতি ২০ হাজার থেকে ৩০ হাজার টাকা ম্যাচ ফি প্রদান করা হয়।
 
প্রতিমন্ত্রী আরও জানান, বিদেশি কোচদের বেতন ভাতাদি বাবদ মাসিক আনুমানিক ৭০ লাখ টাকা খরচ করা হয়।

বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক ও ঘরোয়া বিভিন্ন ক্রিকেট সিরিজ ও টুর্নামেন্ট আয়োজনের ক্ষেত্রে গত আর্থিক বছরে ব্যয় হয়েছে ৩৫ কোটি টাকা।

ঢাকা, সোমবার, মার্চ ২, ২০১৫ (বিডিলাইভ২৪) // কে এইচ এই লেখাটি ১৫০৮ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন