সর্বশেষ
সোমবার ৫ই অগ্রহায়ণ ১৪২৫ | ১৯ নভেম্বর ২০১৮

সম্পদের হিসাব: যুক্তরাষ্ট্রের ধারে-কাছে নেই অন্য কোনো দেশ

শনিবার, নভেম্বর ৭, ২০১৫

2081380205_1446868792.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :
নাগরিকদের হাতে থাকা সম্পদের হিসাবে বিশ্বের সবচেয়ে ধনী দেশ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। রাষ্ট্র হিসেবে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের আধিপত্য দৃশ্যত প্রতীয়মান। সম্পদের ক্ষেত্রেও এগিয়ে তারাই। এমন তথ্য উঠে এসেছে দক্ষিণ আফ্রিকাভিত্তিক সম্পদ গবেষণাপ্রতিষ্ঠান নিউ ওয়ার্ল্ড ওয়েলথের ‘ডব্লিউ২০: বিশ্বের শীর্ষ ২০ সম্পদশালী দেশ’ শীর্ষক একটি তালিকায়।

তালিকাটি বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, মার্কিন নাগরিকদের মোট সম্পদের পরিমাণ ৪৮ হাজার ৭৩৪ বিলিয়ন ডলার বা ৪৮ লাখ ৭৩ হাজার ৪০০ কোটি ডলার। এ হিসাবে যুক্তরাষ্ট্রের ধারে-কাছে নেই অন্য কোনো দেশ। দ্বিতীয় স্থানে থাকা চীনের নাগরিকদের মোট সম্পদের পরিমাণ ১৭ হাজার ২৫৪ বিলিয়ন ডলার, যা যুক্তরাষ্ট্রের তুলনায় প্রায় তিন গুণ কম। র‌্যাঙ্কিংয়ে তৃতীয় জাপানের নাগরিকদের মোট সম্পদ ১৫ হাজার ২৩০ বিলিয়ন ডলার।

একটি দেশে বসবাসকারী সব নাগরিকের মোট সম্পদের ভিত্তিতে এই তালিকা তৈরি করা হয়েছে। নগদ অর্থের পাশাপাশি স্থাবর-অস্থাবর সম্পত্তি, বিনিয়োগ, ব্যবসার লভ্যাংশ—এ সবকিছুই র‌্যাঙ্কিং তৈরিতে বিবেচনা করা হয়েছে।

তালিকায় শীর্ষ ১০ দেশের মধ্যে আছে জার্মানি, যুক্তরাজ্য, ফ্রান্স, ইতালি, কানাডা, অস্ট্রেলিয়া ও ভারত। ১০ নম্বরে থাকা ভারতের নাগরিকদের মোট সম্পদের পরিমাণ ৩ হাজার ৪৯২ বিলিয়ন ডলার।

শীর্ষ ২০ দেশের এ তালিকায় আরও আছে এশিয়ার দক্ষিণ কোরিয়া ও ইন্দোনেশিয়া। ১৩ নম্বরে থাকা দক্ষিণ কোরিয়ার নাগরিকদের মোট সম্পদ ২ হাজার ২৬৯ বিলিয়ন ডলার আর ইন্দোনেশিয়ার নাগরিকদের মোট সম্পদ ১ হাজার ৪২৪ বিলিয়ন ডলার।

সম্পদশালী দেশের তালিকা তৈরির পাশাপাশি মাথাপিছু গড় সম্পদ (পার ক্যাপিটা ওয়েলথ) এবং সম্পদ প্রবৃদ্ধি অর্জনে শীর্ষ ২০ দেশের আলাদা র‌্যাঙ্কিং করেছে নিউ ওয়ার্ল্ড ওয়েলথ। মাথাপিছু গড় সম্পদের হিসাবে বিশ্বে সবচেয়ে ধনী দেশ সুইজারল্যান্ড। দেশটির একজন নাগরিকের মাথাপিছু গড় সম্পদের আর্থিক মূল্য ২ লাখ ৮৫ হাজার ডলার। এ তালিকার দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থানে আছে যথাক্রমে অস্ট্রেলিয়া ও যুক্তরাষ্ট্র। সুইজারল্যান্ডের একজন নাগরিকের পার ক্যাপিটা ওয়েলথ ২ লাখ ৪ হাজার ডলার আর যুক্তরাষ্ট্রে তা ১ লাখ ৫০ হাজার ডলার।

গত ১৫ বছরে (২০০০ থেকে ২০১৫) সম্পদের প্রবৃদ্ধিতে তালিকার শীর্ষ দেশ নির্বাচিত হয়েছে ইন্দোনেশিয়া। দেশটির গত ১৫ বছরে মানুষের মাথাপিছু সম্পদ বেড়েছে ৩৬২ শতাংশ। ২০০০ সালে ইন্দোনেশিয়ার মানুষের পার ক্যাপিটা ওয়েলথ ছিল ১ হাজার ৩০০ ডলার, আর ২০১৫ সালে তা বেড়ে হয়েছে ৬ হাজার ডলার।

ইন্দোনেশিয়ার পরে এ তালিকার দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থানে আছে চীন ও রাশিয়া। চীনের মানুষের গড় সম্পদ গত ১৫ বছরে ৩৪১ শতাংশ বেড়েছে, আর রাশিয়ানদের বেড়েছে ২৫৩ শতাংশ। ২০০০ সালে চীনাদের মাথাপিছু সম্পদ ছিল মাত্র ২ হাজার ৯০০ ডলার, ২০১৫ সালে তা প্রায় ১৩ হাজার ডলারে দাঁড়িয়েছে। এ তালিকার পঞ্চম স্থানে থাকা ভারতীয়দের সম্পদ গত ১৫ বছরে তিন গুণেরও বেশি বেড়েছে। ২০০০ সালে একজন ভারতীয়র গড় সম্পদ ছিল ৯০০ ডলার, আর এখন তা ২ হাজার ৮০০ ডলার।

মাথাপিছু সম্পদের হিসাবে মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোর মধ্যে শীর্ষে আছে কাতার। দেশটির নাগরিকদের পার ক্যাপিটা ওয়েলথ ১ লাখ ৮ হাজার ডলার। দ্বিতীয় স্থানে থাকা সংযুক্ত আরব আমিরাতের মানুষের গড় সম্পদের পরিমাণ ৭৬ হাজার ডলার। কুয়েত এ তালিকার তিন নম্বরে রয়েছে, দেশটির মাথাপিছু গড় সম্পদ ৭২ হাজার ডলারের বেশি। মাথাপিছু সম্পদের হিসাবে আফ্রিকা মহাদেশের শীর্ষ তিনটি দেশ হলো যথাক্রমে মরিশাস, দক্ষিণ আফ্রিকা ও নামিবিয়া। এ মহাদেশে গত ১৫ বছরে অ্যাঙ্গোলা ও ঘানার মানুষের সম্পদ বেড়েছে সবচেয়ে বেশি।
নিউ ওয়ার্ল্ড ওয়েলথের র‌্যাঙ্কিং

ব্যক্তি সম্পদে শীর্ষ ১০ দেশ
দেশ সম্পদ (বিলিয়ন ডলার)
যুক্তরাষ্ট্র ৪৮,৭৩৪
চীন ১৭, ২৫৪
জাপান ১৫,২৩০
জার্মানি ৯,৩৫৮
যুক্তরাজ্য ৯,২৪০
ফ্রান্স ৮,৭২২
ইতালি ৭,৩০৮
কানাডা ৪,৭৯৬
অস্ট্রেলিয়া ৪,৪৯৭
ভারত ৩,৪৯২
সম্পদের প্রবৃদ্ধিতে শীর্ষ ১০ (২০০০-২০১৫)
দেশ প্রবৃদ্ধি
ইন্দোনেশিয়া ৩৬২%
চীন ৩৪১%
রাশিয়া ২৫৩%
অস্ট্রেলিয়া ২৪৮%
ভারত ২১১%
ব্রাজিল ২০৭%
দক্ষিণ কোরিয়া ১৩২%
ফ্রান্স ১২৭%
কানাডা ১১৯%
সুইজারল্যান্ড ১০৯%

সূত্র: নিউ ওয়ার্ল্ড ওয়েলথ

ঢাকা, শনিবার, নভেম্বর ৭, ২০১৫ (বিডিলাইভ২৪) // আর কে এই লেখাটি ১৩৩০ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন