সর্বশেষ
মঙ্গলবার ১০ই আশ্বিন ১৪২৫ | ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮

কীভাবে বুঝবেন ভুল মানুষের সাথে সর্ম্পক করেছেন?

শনিবার, নভেম্বর ৭, ২০১৫

1487150960_1446873245.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :
মানুষ বিচিত্র, আরো বিচিত্র তার প্রেম। চোখের পলকে, পথের দেখায় কখন কোথায় কীভাবে সে প্রেমে পড়ে যায়, তার বৈচিত্র্যের হদিস মেলা ভার।

প্রেম তো আসে আচমকা, সে সময় সঙ্গীটি ভালো না মন্দ হবে বোঝার তেমন উপায় থাকে না। তবে সম্পর্ক চলা অবস্থায় বোঝা যায়, কে ভালো আর কে মন্দ।

অনেক সময় মানুষ ভুল মানুষের প্রেমে পড়ে যায়। এমন সম্পর্ক কিন্তু চিরস্থায়ী হলে ফলাফল খারাপ হতে পারে। কাজেই সম্পর্ক যে অবস্থাতেই থাকুক, ভুল-শুদ্ধ যাচাই করে নিতে ভুলবেন না।

কীভাবে বুঝবেন আপনি ভুল মানুষের প্রেমে পড়েছেন, সে বিষয়ে বিশদ বৃত্তান্ত দিয়েছে মেনজএক্সপি ওয়েবসাইট। এক নজরে দেখে নিন এখনই :

১. আপনি হয়তো তাকে মন দিয়ে ভালোবেসেছেন। তার জন্য সবকিছু করছেন, যা অন্য কেউ তার জন্য করবে না। অথচ বিনিময়ে সে আপনার জন্য কিছু করা দূরের কথা, ততটা গুরুত্বই দিচ্ছে না। তখন বুঝে নিতে হবে, মানুষটি আপনার জন্য ভুল ছাড়া আর কিছু নয়।

২. আপনি সত্যিকার অর্থে কেমন মানুষ, এটা তার সামনে প্রকাশ করতে পারছেন না। তার ইচ্ছানুযায়ী নিজেকে প্রকাশ করছেন। আপনি মনে করছেন, সত্যিকারের আপনাকে সে মেনে নিতে পারবে না। যার সঙ্গে নিজেকেই পরিচয় করিয়ে দিতে সাহস পাচ্ছেন না, তার সঙ্গে বাকি জীবনটা কীভাবে কাটাবেন? যে আপনাকেই মেনে নিতে পারবে না সে আপনার আচরণ, আপনার কাজ, আপনার চিন্তাকে মেনে নেবে কী করে? তাই এমন মানুষ থেকে দূরে থাকাই ভালো।

৩. আপনার সঙ্গীর মধ্যে আপনার জন্য আবেগ অনেক কম। সে একটু দূরত্বই পছন্দ করে। আপনি অনেক কিছুই হয়তো তার জন্য করছেন, কিন্তু তার আচরণ দেখলে মনে হয় না সে আপনাকে ভালোবাসে। এমন মানুষকে জীবনসঙ্গী না করাই ভালো।

৪. আপনার জীবনে কী ঘটছে, কী ঘটছে না এটা জানার বিন্দুমাত্র আগ্রহ তার নেই। সে জানে না বা জানতে চায় না আপনি জীবন থেকে কী চান, নিজের জীবনকে কীভাবে সাজাতে চান। মূলত সে নিজেকে নিয়েই ব্যস্ত। আপনার কথা ভাবার তার সময় নেই। এমন মানুষের জন্য আপনার মূল্যবান সময় নষ্ট না করাই ভালো।

৫. সে আপনার কথা মন দিয়ে শোনার চেষ্টা করে না। অথচ নিজের কথা আপনাকে পুরোটাই বলে এবং সে কাজই করে, যেটা নিজে চায়। আপনার চাওয়া না-চাওয়াকে কোনো গুরুত্ব সে দেয় না। এ ধরনের মানুষকে বেশিদিন পাত্তা দিলে কিন্তু ঠকতে হবে আপনার।

৬. আপনাদের সম্পর্ক হয়তো অনেক দিনের। কিন্তু এখনো আপনি তার সম্বন্ধে অনেক কিছু জানেন না। কিছু কিছু বিষয়ে সে এখনো রহস্য করে। নিজের মধ্যেই রাখতে চায়। যে মানুষ আপনাকে বিশ্বাস করে না, তাকে ভালোবেসে কী-ই বা আছে!

৭. আপনি হয়তো সারাক্ষণই তার খোঁজখবর নিচ্ছেন, কিন্তু তার আপনাকে নিয়ে কোনো মাথাব্যথা নেই। আপনি কী করছেন, কী করছেন না এগুলো নিয়ে তার কোনো চিন্তা নেই। যার জীবনে আপনি আছেন কি নেই এই অনুভূতি কাজ করে না, সে কখনোই ভালো জীবনসঙ্গী হতে পারে না।

৮. তার সঙ্গে দেখা হওয়ার পর আপনি খুব বেশি আনন্দ অনুভব করেন না। মনে হয় যেন, রুটিন অনুযায়ী দেখা করতে এসেছেন। শুধু চিন্তা করেন, যতটুকু সময় আছেন কোনো ঝগড়া না, কথাকাটাকাটি না করে সময়টা পার করে দিতে পারলেই হয়! মনে রাখবেন, এমন পরিকল্পনা করে কখনোই সম্পর্ক হয় না।

৯. কোনো খুশির সংবাদ বা দুঃখের সংবাদ তার কাছে বলে আপনি খুব একটা শান্তি পান না। কারণ আপনি যা আশা করছেন, তেমন প্রতিক্রিয়া আপনি তার কাছ থেকে পারতপক্ষে পান না। তাই কোনো অনুভূতি এখন আর তাকে বলার ইচ্ছা জাগে না। এমনটা হলে এই সম্পর্ক না রাখাই ভালো।

১০. সম্পর্কটি টিকিয়ে রাখতে আপনি অনেক চেষ্টা করছেন। অথচ তার দিক থেকে তেমন কোনো চেষ্টা নেই। সম্পর্ক ভেঙে গেলেও তার কোনো আফসোস হবে না। এমন মানুষ থেকে যতটা সম্ভব দূরে থাকুন। ভালো থাকবেন।

ঢাকা, শনিবার, নভেম্বর ৭, ২০১৫ (বিডিলাইভ২৪) // ম পা এই লেখাটি ৪৭৩৫ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন