সর্বশেষ
সোমবার ১৬ই চৈত্র ১৪২৬ | ৩০ মার্চ ২০২০

শরীরে ভিটামনি সি’র অভাব বুঝবেন যেভাবে

শুক্রবার, জানুয়ারী ২৪, ২০২০

I.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :

ভিটামিন সি শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। এই উপাদানে থাকা ফ্রি র‌্যাডিক্যালস ও অক্সিডেটিভ স্ট্রেসের হাত থেকে বাঁচায়, চুল ও ত্বকের যত্নে এবং শ্বেতকণিকার সংখ্যা বাড়িয়ে যেকোনো রোগের প্রতিরোধ গড়ে তুলতে সাহায্য করে।

শরীরে ভিটামিন সি’র অভাব হলে তা খুব সহজে বোঝা যায় না। তবে কিছু রোগ দেখা দেয় যা থেকে ধরে নেয়া হয় শরীরে ভিটামিনের অভাব। দাঁতের মাড়িতে সমস্যা দেখা দেয়া, অতিরিক্ত চুল পড়া, ত্বক ফ্যাকাশে হওয়া ভিটামিন সির ঘাটতির লক্ষণ।

প্রতিদিনের কিছু খাবার রয়েছে, যা শরীরের কোষে কোষে ভিটামিন সি পৌঁছে দেয়। লেবু, আমলকী, পেঁপে, টমেটো, ক্যাপসিকাম, পেয়ারা ও ব্রকোলি ভিটামিন সি’র ভালো উৎস।

১. শরীরে ভিটামিন সি’র অভাব হলে দাঁতের সমস্যা দেখা দেয়। ভিটামিন সি’র অভাব হলে দাঁতের গোড়ায় ক্যালসিয়াম জমায় ও মাড়িকে দুর্বল করে।

২. ভিটামিন সি’র অভাবে চুলের গোড়াকে আলগা করে ও চুল পাতলা করে তোলে। কোনো অসুখ ছাড়াই ঘন ঘন চুল উঠলে বুঝবেন ভিটামিন সি’র অভাব।

৩. এই ভিটামিনের অভাবে ত্বকের বাইরের স্তর (এপিডার্মিস) পাতলা ও ফ্যাকাশে হতে থাকে।

৪. ভিটামিন সি’র লিম্ফোসাইট বা শ্বেত রক্তকণিকা তৈরি হতে পারে না এবং শরীর কোনো জীবাণুর আক্রমণ ঠেকাতে পারে না।সহজে ঠান্ডা লাগেও এই কারণে।

৫. সাপ্লিমেন্ট খাওয়ার পরেও অ্যানিমিয়ার হানা না কমলে অবশ্যই পাতে ভিটামিন সি’র পরিমাণ বাড়িয়ে দিন। ক্লান্তিবোধ, ঘন ঘন মাথা ব্যথা সঙ্গে রক্তাল্পতার চোখরাঙানি আদতে ভিটামিন সির অভাবকেও বোঝায়।


ঢাকা, শুক্রবার, জানুয়ারী ২৪, ২০২০ (বিডিলাইভ২৪) // জে এস এই লেখাটি ১৮৬ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন