সর্বশেষ
রবিবার ১২ই আশ্বিন ১৪২৭ | ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০

দয়া করে দাম বাড়াবেন না: মিম

রবিবার, মার্চ ২২, ২০২০

jeet-sultan-the-saviour-1-800x445.jpg
বিডিলাইভ রিপোর্ট :

প্লিজ আপনারা নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের দাম বাড়াবেন না। শুধু দেশের নয়, পৃথিবীর এমন সংকটময় পরিস্থিতিতে অবৈধ উপায়ে টাকা কামানো থেকে বিরত থাকুন। একই সঙ্গে ভোক্তাদের উদ্দেশেও বলেছেন, দয়া করে কোনো কিছুতে আতঙ্কিত হয়ে আপনারা প্রয়োজনের অতিরিক্ত খাবার মজুত করে রাখবেন না। আপনার যতটুকু প্রয়োজন, ঠিক ততটাই কিনুন। দেশের শীর্ষস্থানীয় একটি গণমাধ্যমের সঙ্গে আলাপকালে এসব কথা বলেন তিন দিন ধরে গৃহবন্দী থাকা মডেল ও অভিনয়শিল্পী বিদ্যা সিনহা মিম।

মিম বলেন, ‘পুরো পৃথিবীতে কী যে শুরু হলো, কিছুই বুঝতে পারছি না। করোনাভাইরাসের গতি–প্রকৃতিও কেউ অনুমান করতে পারছেন না। বিভিন্ন খবরাখবর খবর পড়ে বুঝলাম, একেক দেশে এই ভাইরাসের আচরণ একেক রকম। খুব টেনশনের মধ্যে আছি।’ করোনাভাইরাস-আতঙ্কে যেখানে দেশের মানুষ আতঙ্কে দিন যাপন করছেন, সেখানে ব্যবসায়ীদের একটা অংশ সুযোগটাকে কাজে লাগিয়ে নিত্যপ্রয়োজনীয় বিভিন্ন পণ্যের দাম বাড়িয়ে দিচ্ছে। এই তালিকায় মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও গ্লাভস যেমন আছে, তেমনি আছে চাল, ডাল, তেল, লবণ, পেঁয়াজসহ আরও নানা পণ্য। বিষয়টি মিমের নজরেও এসেছে। দেশের ব্যবসায়ীদের উদ্দেশে মিম বলেন, ‘এমন বিপর্যয়ে কোথায় সবাই মানবিকতার পরিচয় দেবেন, সেখানে আমাদের পরিস্থিতি উল্টো। একটা অজুহাত পেয়েই ব্যবসায়ীরা দ্রব্যমূল্য বাড়িয়ে দিয়েছেন। সরকারের সংশ্লিষ্ট লোকজনের কাছে আমার অনুরোধ, মানুষের মধ্যে স্বস্তি ফেরাতে জিনিসপত্রের দাম কঠোরভাবে নিয়ন্ত্রণ করুন।

আর যারা এই ধরনের অপকর্মের সঙ্গে যুক্ত, তাদের চিহ্নিত করে শাস্তির ব্যবস্থা করুন। এই ধরনের দুর্যোগপূর্ণ পরিস্থিতিতে কোথায় আমরা একে অপরের পাশে দাঁড়াব, সহমর্মিতা দেখাব, উল্টো অধিক মুনাফা করার মানসিকতা নিয়ে ঘুরছি! যারা এই দুঃসময়ের সুযোগটাকে কাজে লাগাচ্ছেন, মানুষের অসহায়ত্বকে পুঁজি করার চেষ্টা করছেন, তারা যে মানুষ, এ নিয়েও আমার সন্দেহ।


ঢাকা, রবিবার, মার্চ ২২, ২০২০ (বিডিলাইভ২৪) // এ এম এই লেখাটি ৩২৩ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন