সর্বশেষ
শুক্রবার ২১শে ফাল্গুন ১৪২৭ | ০৫ মার্চ ২০২১

আগামী সপ্তাহ থেকেই ভারত কোভিড-১৯ টিকা চালু করতে প্রস্তুত

বুধবার, জানুয়ারী ৬, ২০২১

014.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :

 

সিরাম ইনস্টিটিউট অফ ইন্ডিয়া (এসআইআই) এবং ভারত বায়োটেক লিমিটেড কর্তৃক নির্মিত দুটি করোনাভাইরাস টিকা যথাক্রমে-‘কভিশিল্ড’ এবং ‘কোভাক্সিন’ ‘জরুরি ব্যবহার’ অনুমোদন থেকে ১০ দিনের মধ্যে চালু করার জন্য প্রস্তুত।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এখানে এক ব্রিফিংয়ে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য সচিব রাজেশ ভূষণ বলেন, আমরা জরুরি ব্যবহারের অনুমোদনের ১০ দিনের মধ্যে টিকা চালু করতে প্রস্তুত ‘চূড়ান্ত আহ্বান জানাবে সরকার।’ সরকারের এই ঘোষণা ভারতীয় ওষুধ নিয়ন্ত্রক কতৃক দুটি করোনাভাইরাস টিকা অনুমোদনের পর অভিযান শুরুর সময়সীমা নিয়ে জল্পনার অবসান ঘটবে।

এদিকে, সেরাম ইনস্টিটিউটের সিইও আদর পুনাওয়ালা ও ভারত বায়োটেকের এমডি কৃষ্ণ এল্লা জানিয়েছেন, ‘উভয় সংস্থাই পরস্পরের কাজের প্রতি দুর্দান্তভাবে শ্রদ্ধাশীল এবং গত সপ্তাহের ভুল বোঝাবুঝি এখন অতীত। টিকার গুরুত্ব সম্পর্কে আমরা সচেতন। দেশ ও বিশ্ববাসীর জীবন রক্ষাই এখন সব থেকে বড় কাজ। টিকা এর জীবনদায়ী প্রতিষেধক যা অতিমারীর বিরুদ্ধে লড়াই করে গোটা বিশ্বকে রক্ষা করবে। এতেই স্বাস্থ্য সংকট কাটবে ও অর্থনীতি ফের চাঙ্গা হবে। আমরা আমাদের তৈরি টিকা যৌথভাবে বিশ্ববাসীর কাছে পৌঁছে দিতে অঙ্গীকারবদ্ধ।’

অন্যদিকে, দেশে বেড়েই চলেছে করোনার বিলিতি স্ট্রেন। মঙ্গলবার প্রায় ২০ জনের দেহে পাওয়া গেল এই ভাইরাসের উপস্থিতি। এখনও পর্যন্ত দেশে এই স্ট্রেনে আক্রান্তের সংখ্যা হয়েছে ৫৮।

এছাড়া ভারতের সিরাম ইনস্টিটিউটের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আদার পুনাওয়ালা সম্প্রতি প্রচার মাধ্যমকে বলেন, কিছু আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন করার পর আগামী ৩০ থেকে ৪৫ দিনের মধ্যে তার কোম্পানি ৭০ থেকে ৮০ মিলিয়ন ডোজে সরবরাহ করবে বলে আশা করা হচ্ছে। এদিকে, এসআইআই এবং ভারত বায়োটেক আজ যৌথ বিবৃতিতে বলেছে, তারা ভারত এবং বিশ্বের কাছে কোভিড-১৯ টিকা সুষ্ঠভাবে চালু করার অঙ্গীকার করেছে।
উভয় টিকা নির্মাতা তাদের সম্মিলিত উদ্দেশ্য কোভিড-১৯ টিকা উন্নয়ন, উৎপাদন এবং সরবরাহ করার জন্য তাদের সম্মিলিত অভিপ্রায় জানিয়েছেন। এতে বলা হয়েছে, ‘টিকা দুটির বৈশ্বিক জনস্বাস্থ্য ভালো, জীবন বাঁচানোর এবং দ্রুত অর্থনৈতিক স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরে আসা তরান্বিত করার ক্ষমতা আছে।

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘আমরা মানুষ এবং দেশগুলোর জন্য টিকার গুরুত্ব সম্পর্কে পুরোপুরি সচেতন, এর মাধ্যমে আমরা আমাদের কোভিড-১৯ টিকার জন্য বিশ্বব্যাপী প্রবেশাধিকার প্রদানে আমাদের যৌথ অঙ্গীকারের কথা জানাচ্ছি।’


ঢাকা, বুধবার, জানুয়ারী ৬, ২০২১ (বিডিলাইভ২৪) // এস বি এই লেখাটি ৩৮২ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন